Thu, Sep 7 2017 - 2:39:47 PM BDT প্রচ্ছদ >> তথ্যপ্রযুক্তি

Attack on Myanmar social welfare and border ministry websitesমিয়ানমারের সমাজকল্যাণ ও সীমান্ত মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে আক্রমণ

মিয়ানমারের সমাজকল্যাণ ও সীমান্ত মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে আক্রমণ

হলি টাইমস রিপোর্ট :

মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের ওপর সেনাবাহিনীর অভিযানের প্রতিবাদে এবার দেশটির সীমান্ত বিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সরকারি ওয়েবসাইটে আক্রমণ চালিয়েছে বাংলাদেশি হ্যাকাররা।

বুধবার দিনগত রাত থেকে বাংলাদেশি হ্যাকিং গ্রুপ সাইবার-৭১ মিয়ানমারের সমাজকল্যাণ মন্ত্রণায়ের ওয়েবসাইট (www.dsw.gov.mm) ও সীমান্ত বিষয়ক ওয়েবসাইট (www.mba.gov.mm) ডাউন করে দিয়েছে। বর্তমানে ওয়েবসাইট দুটি ওপেন হচ্ছে না।

এ ছাড়া সম্প্রতি পাকিস্তানের দৈনিক পত্রিকা ‘দ্য ডন’ উল্লেখ করে রোহিঙ্গা নিধনে পাকিস্তান রাষ্ট্রীয়ভাবে মিয়ানমারকে সাহায্য করছে। মুসলিম দেশ হয়েও রোহিঙ্গাদের রাষ্ট্রীয় সহায়তা না করে তাদের নিধনে সহায়তা করায় মিয়ানমারের পাকিস্তান দূতাবাসের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটেও (http://www.me-islamabad.org/) আক্রমণ করে সাইবার-৭১। পরবর্তীতে তারা মিয়ানমার ছাড়া বাইরের কোনো দেশ থেকে ওয়েবসাইট প্রবেশ বন্ধের সিদ্ধান্ত নেয়।

সাইবার-৭১ জানায়, মরোক্কো-ইন্দোনেশিয়া-পাকিস্তানি কিছু হ্যাকার গ্রুপের সঙ্গে সম্মিলিতভাবে মিয়ানমারের সাইবার স্পেসে আক্রমণ চালাচ্ছে ‘সাইবার ৭১’। গতকাল (বুধবার) মরোক্কোর হ্যাকারদের দ্বারা হ্যাক হওয়ার পরবর্তী সময়ে মিয়ানমারের অভ্যন্তরীণ রাজস্ব বিভাগের সরকারি ওয়েবসাইটটিও সম্পূর্ণ ডাউন করে দিয়েছে সাইবার-৭১।

এর আগে গত মঙ্গলবার ইন্দোনেশিয়ার হ্যাকারদের সঙ্গে একজোট হয়ে মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট (http://www.president-office.gov.mm), তথ্য মন্ত্রণালয় (http://www.moi.gov.mm), কেন্দ্রীয় ব্যাংক (http://www.cbm.gov.mm) এবং প্রভাবশালী কোম্পানি এম কে গ্রুপের অফিসিয়াল (http://www.mkgroup.com.mm/aboutus.php) ওয়েবসাইটে আক্রমণ চালিয়ে ওয়েবসাইট ডাউন ও হ্যাক করে সাইবার-৭১।

পরে রাতে এম কে গ্রুপের ওয়েবসাইটটি হ্যাক করার পর সাইবার-৭১ ফেসবুকে একটি পোস্টে জানায়, মিয়ানমারে প্রতিদিন রোহিঙ্গা মুসলমানদের হত্যা করা হচ্ছে। মসজিদ ও মুসলিমদের বাড়ি ধ্বংস করে দেয়া হচ্ছে। সরকার দর্শকের মতো এসব দেখছে। একটাই পরিষ্কার সতর্কবার্তা, তারা যতক্ষণ না পর্যন্ত রোহিঙ্গা নির্যাতন বন্ধ করবে ততক্ষণ পর্যন্ত আমরা তাদের সাইবার স্পেসে আক্রমণ পরিচালনা করব।

jagonews24

মিয়ানমারের রাষ্ট্রীয় ওয়েবসাইট হ্যাক ও আক্রমণের বিষয়ে সাইবার-৭১ এর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তাদের পক্ষ থেকে বলা হয়, ‘বাংলাদেশে মিয়ানমারের হেলিকপ্টারের অবৈধ অনুপ্রবেশের জন্য ক্ষমা না চাওয়া এবং রোহিঙ্গা হত্যা বন্ধ না হওয়া পর্যন্ত আমরা তাদের সাইবার স্পেসে আক্রমণ পরিচালনা করব। তারা আমাদের আকাশ সীমানায় অনুপ্রবেশ করেছে, আমরা তাদের সাইবার স্পেসে অনুপ্রবেশ করেছি। দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না।’

উল্লেখ্য, সম্প্রতি মিয়ানমারের রাখাইনে রোহিঙ্গা মুসলিমদের বিরুদ্ধে দেশটির সেনাবাহিনী অভিযান পরিচালনা করছে। রোহিঙ্গাদের শত শত গ্রামে অগ্নিসংযোগ, হেলিকপ্টার থেকে মর্টার শেল, গুলি নিক্ষেপ করা হচ্ছে। মিয়ানমার সরকারের এই অভিযানে বাংলাদেশের দিকে ছুটছেন হাজার হাজার রোহিঙ্গা।সূত্র:জাগোনিউজ২৪.কম



Comments